গণতন্ত্রকে বাঁচাতে হলে আওয়ামী লীগকে বাঁচাতে হবে: ওবায়দুল কাদের

প্রকাশিত: ৮:১৫ পিএম, ডিসেম্বর ২, ২০১৯
  • শেয়ার করুন

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, ‘গণতন্ত্রকে বাঁচাতে হলে আওয়ামী লীগকে বাঁচাতে হবে, বাংলাদেশের উন্নয়নকে বাঁচাতে হলে শেখ হাসিনাকে বারবার ক্ষমতায় আনতে হবে। কারণ গত ৪৪ বছরে সাহসী রাজনীতিকের নাম শেখ হাসিনা, সবচেয়ে সফল প্রশাসকের নাম শেখ হাসিনা।’

সোমবার ( ২ ডিসেম্বর) পটুয়াখালী শিশু আলাউদ্দিন শিশু পার্কে আয়োজিত সম্মেলনে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় এসব কথা বলেন তিনি।

ওবায়দুল কাদের বলেন, নেতারা ঘরের মধ্যে ঘর করে মশারির মধ্যে মশারি, আত্মীয়করণ করে চৌদ্দপুরুষকে নিয়ে পকেট কমিটি করে!

তিনি বলেন, পকেট কমিটি চলবে না, কমিটি করতে গিয়ে খারাপ মানুষদের দলে টানা যাবে না। অনেক ত্যাগীরা কমিটিতে জায়গা পায়নি তাদের জায়গা করে দিতে হবে। কর্মীদের কোণঠাসা করে আওয়ামী লীগ বাঁচবে না বলে মন্তব্য তিনি।

তিনি আরও বলেন, বাংলাদেশের উন্নয়নকে বাঁচাতে হলে শেখ হাসিনাকে বারবার ক্ষমতায় আনতে হবে। বিগত ৪৪ বছরে বাঙালি জাতির ইতিহাসে সাহসী রাজনীতি ও সফল নারী নেতৃত্বের অধিকারী বঙ্গবন্ধুকন্যা শেখ হাসিনা। বাংলাদেশকে বাঁচাতে হলে আওয়ামী লীগকে বাঁচিয়ে রাখুন। দেশের সন্ত্রাস ও জঙ্গিবাদদের বিরুদ্ধে রুখে দাঁড়াতে ঐক্যবদ্ধ হয়ে আওয়ামী লীগকে শক্তিশালী করুন।

বিকাল ৩টার পরে দ্বিতীয় অধিবেশনে পটুয়াখালী জেলা আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক মুক্তিযোদ্ধা কাজী আলমগীরকে সভাপতি এবং যুগ্ম-সম্পাদক ভিপি আবদুল মান্নানকে সম্পাদক হিসেবে ঘোষণা দেন ওবায়দুল কাদের।

এর পূর্বে শহরের শহীদ আলাউদ্দিন শিশুপার্কে বেলুন, শান্তির পায়রা আর জাতীয় ও দলীয় পতাকা উত্তোলনের মধ্য দিয়ে সম্মেলন উদ্বোধন করেন পার্বত্য শান্তিচুক্তি বাস্তবায়ন কমিটির আহ্বায়ক আবুল হাসনাত আবদুল্লাহ।

জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও পটুয়াখালী-১ (সদর) আসনের সংসদ সদস্য অ্যাডভোকেট মো. শাহজাহান মিয়ার সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সম্মেলনে প্রধান বক্তা হিসেবে বক্তব্য রাখেন দলের সাংগঠনিক সম্পাদক আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাসিম।

বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক মাহাবুব-উল আলম হানিফ, আবদুর রহমান, তথ্য ও গবেষণাবিষয়ক সম্পাদক অ্যাডভোকেট মো. আফজাল হোসেন, উপ-দফতর সম্পাদক ব্যারিস্টার বিপ্লব বড়ুয়া, সদস্য গোলাম রাব্বানী চিনু প্রমুখ।

এ ছাড়াও দ্বিতীয় অধিবেশনে সদর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও জেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক গোলাম সরোয়ারকে এক নম্বর যুগ্ম-সম্পাদক ও বাউফল উপজেলা পৌর মেয়র জিয়াউল হক জুয়েলকে দুই নম্বর যুগ্ম-সম্পাদক করা হয়েছে।

প্রসঙ্গত, ২০১৪ সালে পটুয়াখালী জেলা আওয়ামী লীগের সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়। ১৯৯২ সাল থেকে পটুয়াখালী জেলা আওয়ামী লীগের দায়িত্ব পালন করছেন পটুয়াখালী এক আসনের এমপি অ্যাডভোকেট শাহজাহান মিয়া।

দীর্ঘ ২৭ বছর পরে জেলা আওয়ামী লীগের জ্যেষ্ঠ পদে বদল হওয়ায় জেলা আওয়ামী লীগের মধ্য আনন্দ-উচ্ছ্বাস লক্ষ্য করা গেছে। ২০১৭ সালের নভেম্বরে জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বীর মুক্তিযোদ্ধা খান মোশাররফ হোসেন মৃত্যুবরণ করলে ওই পদের দায়িত্ব গ্রহণ করেন ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক মুক্তিযোদ্ধা কাজী আলমগীর হোসেন।



সর্বশেষ খবর